শেরে বাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে একটি অনন্য দিন!

একটি অসাধারণ দিন গেল শেরে বাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে। সেখানকার শিক্ষক ও ছাত্রদের আন্তরিকতায় আমরা মুগ্ধ। সারাদিন অনেক কিছু শেখায়, দেখায়, জানায়, শুনায় কাটাতে পেরে আনন্দিত।

আমার একটা অসম্পূর্ণতা ছিল বৃক্ষ-গাছ-লতা-পাতা-গুল্ম ইত্যাদির নাম অল্প জানতাম।
flower

আজকে প্রায় শ’দুয়েক বৃক্ষ-লতা-গুল্মের নাম কানে ঢুকেছে। খুব শীঘ্রই এই পরিচিতিকে কাজে লাগিয়ে আত্মীয়তাতে নিয়ে যাবো। আজকের দিনটি একটি অসাধারণ শুরু। কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও মেধাবি ছাত্রদের সাথে কথা বলে নতুন জ্ঞানের মসলা পেয়েছি। একদিনে অনেকের সাথে বন্ধুত্ব গড়ে নিজেকে হৃদ্য করেছি।

 

ড. এ. এফ. এম. জামাল উদ্দিন এর সাথে অল্প সময়ের আলাপ দীর্ঘদিন স্মরণে থাকবে। ফুল-পাখি এবং নানা বিষয় নিয়ে কাজ করা এ ভদ্রলোকের চেহারায় সৌন্দর্য ও জ্ঞানের দীপ্তি দেখে উদ্দীপ্ত হয়েছি।

jamalsir.single
বাংলাদেশে নন্দিনী নামে একটি অসাধারণ ফুল নিয়ে আসার জন্য ১৭ বছর ধরে কাজ করার কথা জানিয়েছেন বেশ গর্বভরে। ফল-ফুল আর বৃক্ষকে আপন সন্তানের মতো লালন-পালন ও মমতা বিলানো এই ভদ্রলোকের অফিস ভবনের ছাদে তারই ছাত্র-ছাত্রীদের মাধ্যমে দুই শতাধিক বৃক্ষ, ফল-ফুলের সাথে পরিচিত হওয়া ছিল একটি সুন্দরতম এক ঘন্টা!
2

আমরা খুব শীঘ্রই এ জ্ঞানপিপাসু দেশ সেরা গবেষককে বাংলাদেশ স্টাডি ফোরামের কোন লেকচারে দেখতে চাই। উনি সানন্দে আমাদের সাথে আরও সময় দিতে চান জানতে পেরে আমরা উল্লসিত। দেশের মেধাবী সন্তানদেরকে সম্মান দিতে পারলেই আমরা নিজেরাও সম্মানিত হবো।

আজকের এই অসাধারণ দিনটি উপহার দেওয়ার জন্য যারা কয়েক সপ্তাহ ধরে কাজ করেছেন, আজকে সব চাপ সহ্য করেছেন সেই অসাধারণ বন্ধু কমরেডদেরকে হৃদয়ের অন্তস্থল থেকে কৃতজ্ঞতা।

কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং আমাদের প্রধান হোস্ট শিমুল চন্দ্র সরকার, তার সহকর্মী শিক্ষক-শিক্ষিকা মণ্ডলী এবং তাদের পরিশ্রমী ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের আপ্যায়ন-সমাদরে আমাদেরকে সম্মানিক করেছে। আমরা খুবই অনুপ্রাণিত বোধ করছি। তাদের কাছ থেকে অনেক জ্ঞানগর্ব আলোচনা শুনে নিজের জানার পরিধি বিস্তৃত করেছি।

আর এই পুরো ইভেন্ট পরিচালনায় রওনক জাহান, সুমাইয়া জাকিয়া, ওয়ালি উল্লাহ, তানজির সরকার, রহুল আমিন দীপু, কাইয়ুম যে পরিশ্রম করেছে তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করলেই শেষ হবে না। তাদের প্রতি অনেক ভালোবাসা ও শ্রদ্ধা। তারা আমাদের আশাবাদকে উসকে দেওয়ার ক্রীড়নক হিসেবে কাজ করেছেন।

ইস্ট ওয়েস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে আইন বিভাগে সদ্য চেয়ারপার্সন হওয়া সাইমুম রেজা পিয়াস অনেকদিন পর একটি মনোমুগ্ধকর লেকচার দিয়ে আমাকে সহ সবাইকে মুগ্ধ করেছেন। একই কথা প্রয়োজ্য কে. এন. ঈপ্সিতার জন্য। আর বাংলার শিক্ষক মো: আলাউদ্দিন, লোকমান বিন নূর ও এ.এস.এম ইউনুছ তাদের সেরা ফর্মে যে আছেন সেটা জানিয়ে দিয়ে রেখেছেন।

সবার প্রতি অনেক ভালোবাসা ও অশেষ কৃতজ্ঞতা। যাদের নাম নিয়েছি, আর যাদের নাম নেয়নি সবার সম্মিলিত প্রয়াসেই একটি অনন্য অভিজ্ঞতার ভাগিদার হলাম আজ। সবার প্রতি ভালোবাসা ও শুভেচ্ছা।

flower2

ফটোগ্রাফি: রুহুল আমিন দীপু

 

Watch more at youtube…

Related Posts

About The Author

Add Comment